logo
logo
news image

নবনিযুক্ত যুব ও ক্রীড়া প্রতিমন্ত্রী বলেন দুর্নীতিতে জিরো টলারেন্স

ক্রীড়াঙ্গনের দুর্নীতি কঠোর হস্তে দমন করার অঙ্গীকার ব্যক্ত করেছেন নবনিযুক্ত যুব ও ক্রীড়া প্রতিমন্ত্রী মো. জাহিদ আহসান রাসেল।

সোমবার বঙ্গভবনে শপথ নিয়ে বেরিয়ে যাওয়ার সময় সাংবাদিকদের তিনি বলেন, দুর্নীতির বিষয়ে জিরো টলারেন্স। ক্রীড়াঙ্গনে দুর্নীতিতে জড়িত কাউকে ছাড় দেওয়া হবে না।

জাহিদ আহসান রাসেল বলেন, আমি সবসময় দুর্নীতির বিরুদ্ধে। আজকে আমি এখানে এসেছি, সততাকে পুঁজি করে। এটা আমার বাবারও ছিল, আমিও সততাকে ধরে রাখার চেষ্টা করছি।

মন্ত্রী হতে পেরে কেমন লাগছে, জানতে চাইলে তিনি বলেন, আমি খুশি হয়েছি। গাজীপুর-২ আসনের এলাকাবাসীর পক্ষ থেকে আমি মাননীয় প্রধানমন্ত্রীর প্রতি কৃতজ্ঞতা জ্ঞাপন করছি। প্রধানমন্ত্রী আমার প্রতি যে আস্থা রেখেছেন আমি সেই আস্থার প্রতিদান দেওয়ার জন্য সর্বোচ্চ চেষ্টা করব, ইনশাআল্লাহ।

‘এর আগে আমি ১০ বছর ক্রীড়াঙ্গনের সঙ্গে সরাসরি সম্পৃক্ত ছিলাম। আমি আশা করছি, এই অভিজ্ঞতাকে কাজে লাগিয়ে যুব ও ক্রীড়া মন্ত্রণালয়কে একটি আদর্শ মন্ত্রণালয় হিসেবে গড়ে তুলতে পারব,’ বলেন জাহিদ আহসান রাসেল।

ক্রীড়া প্রতিমন্ত্রী বলেন, এই মন্ত্রণালয় নিয়ে সবসময় একটি কথা ওঠে যে, অবকাঠামোর দিকে বেশি নজর দেওয়া হয়, প্রশিক্ষণের দিকে বেশি নজর দেওয়া হয় না। আমি অবশ্যই এটাকে (প্রশিক্ষণ) সবচেয়ে বেশি গুরুত্ব দেব। গ্রাম পর্যায়ে ট্যালেন্টগুলোকে ঢাকায় এনে সারা বছর প্রশিক্ষণ দেওয়ার বিষয়ে আমি নজর দেব।

কমেন্ট করুন

...

সাম্প্রতিক মন্তব্য

Top