logo
logo
add image
news image

নিহত বাংলাদেশির আরও তিন স্বজন গেলেন কাঠমান্ডুতে

নেপালের কাঠমান্ডুতে বিমান দুর্ঘটনায় নিহত বাংলাদেশি দুই যাত্রীর তিন স্বজনকে নেপালের কাঠমান্ডু পাঠানো হয়েছে। ইউএস বাংলা এয়ারলাইন্সের তত্ত্বাবধানে বিমান বাংলাদেশ এয়ারলাইন্সের একটি ফ্লাইটে শুক্রবার তারা কাঠমান্ডু যান।ইউএস বাংলার বারিধারা অফিসে সংস্থাটির জিএম (মার্কেটিং সাপোর্ট অ্যান্ড পাবলিক রিলেশন) কামরুল ইসলাম জাগো নিউজকে এ তথ্য জানিয়েছেন।তিনি বলেন, বিধ্বস্ত হওয়া বিমানের নিহত যাত্রী পিয়াস রায়ের বাবা সোহেন্দু বিশ্বাস রায় এবং বিলকিস আরার ভাই মাসুদ ও তার স্বামীকে বাংলাদেশ বিমানের একটি ফ্লাইটে আজ (শুক্রবার) কাঠমান্ডু পাঠানো হয়েছে।কাঠমান্ডুতে বিমান দুর্ঘটনায় আহত শেহরিন আহমেদকে গতকাল (বৃহস্পতিবার) দেশে ফিরিয়ে এনে ঢাকা মেডিকেল কলেজ (ঢামেক) হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। আজ (শুক্রবার) আহত আরও তিনজনকে দেশে ফিরিয়ে আনা হচ্ছে। তারা হলেন- মেহেদী হাসান, কামরুন্নাহার স্বর্ণা ও আলমুন নাহার এ্যানি।কামরুল ইসলাম বলেন, ফেরত আসা মেহেদী হাসান, কামরুন্নাহার স্বর্ণা ও আলমুন নাহার এ্যানিকে রাজধানীর ইউনাইটেড হাসপাতালে ভর্তি করা হবে। সেই সঙ্গে তাদের যাবতীয় চিকিৎসা ব্যবস্থার তত্ত্বাবধান করবে ইউএস বাংলা।উল্লেখ্য, গত ১২ মার্চ (সোমবার) ইউএস বাংলা এয়ারলাইন্সের ফ্লাইট বিএস-২১১ নেপালের রাজধানী কাঠমান্ডুর ত্রিভুবন আন্তর্জাতিক বিমানবন্দরের কাছে বিধ্বস্ত হয়। চার ক্রুসহ ৬৭ জন যাত্রী নিয়ে বিধ্বস্ত হওয়ার ঘটনায় ৫১ যাত্রীর প্রাণহানি ঘটে।বিমানটিতে মোট ৬৭ যাত্রীর মধ্যে বাংলাদেশি ৩২ জন, নেপালি ৩৩ জন, একজন মালদ্বীপের ও একজন চীনের নাগরিক ছিলেন। তাদের মধ্যে পুরুষ যাত্রীর সংখ্যা ছিল ৩৭, মহিলা ২৮ ও দু’জন শিশু ছিল।

কমেন্ট করুন

...

সাম্প্রতিক মন্তব্য

Top